বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটুক্তিঃ ডিজিটাল আইনে মামলা

গত ৩রা জুন চট্টগ্রামের সাইবার ট্রাইব্যুনালে ২৯ জন ব্যাক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে দেশে অস্থিরতা, বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে লেখা ও বিভেদ-সৃষ্টিকারী মতামত প্রকাশের অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন ২০১৮-এর ২৫ ও ৩১ ধারায় এই মামলা দায়ের করা হয়। মামলার নাম্বার ৩২/২০২১। মামলার নথি চট্টগ্রামের সাইবার ট্রাইবুন্যালের বিচারক এস কে এম তোফায়েল হাসান পর্যালোচনা করে মামলা ইস্যু করবার অনুমতি দেন এবং আগামী রোববার (৬ই জুন) মামলার প্রাথমিক শুনানী হবে বলে জানা গেছে। আদালত সূত্রে জানা যায় মামলার বাদী  রাসেল সরকার (৩৫) চট্টগ্রাম কোতোয়ালী থানার বাসিন্দা। এছাড়াও রাসেল সরকার পেশায় একজন আইনজীবী এবং চট্টগ্রাম আইনজীবী সমিতির আওয়ামী লীগ প্যানেল এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এর সহযোগী সংগঠন বঙ্গবন্ধু আইনজীবী পরিষদের একজন সদস্য।  রাসেল সরকার তার অভিযোগে জানান – দৈনিক নবযুগ-এ গত ২৮শে মে প্রকাশিত “বাংলাদেশে বিপন্ন বাক-স্বাধীনতা,আওয়ামী ফ্যাসিবাদ ও পুতুল বিচারবিভাগ প্রসঙ্গে”  প্রতিবেদনে বাংলাদেশের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং জাতির জনক বঙ্গবন্ধু এবং তার পরিবারকে কেন্দ্র করে হুমকিনাশক, আক্রমণাত্মক ও আগ্রাসী মন্তব্য ছাঁপিয়ে দেশে অস্থিতিশীল ও অরাজক পরিস্থিতি তৈরি করেছে। 

এই মামলায় দৈনিক নবযুগের সম্পাদক ইসরাত রশীদ এই মামলার মূল আসামী দেখানো হয়। উল্লেখ্য এই সম্পাদকের এবং এই পত্রিকার  বিরুদ্ধে অনেক আগে থেকেই আরো বিভিন্ন অভিযোগ রয়েছে এবং এই পত্রিকার মাধ্যমে অনেক দিন ধরেই প্রধানমন্ত্রী ও জাতির জনককে  নিয়ে কটূক্তি করেছেন বলে জানা যায়।মামলা দায়ের-এর দিন রবিবার এই মামলাকে ঘিরে আদালতে উত্তেজনা দেখা যায় এবং আইনজীবী সমিতির কর্মীরা আদালত প্রাঙ্গনে ভীড় করেন। আরো জানা যায় যে এই উক্ত ম্যাগাজিনটি দীর্ঘদিন ধরেই জাতির জনক ও প্রধানমন্ত্রী এবং জনতার আবেগের বিরুদ্ধে অত্যন্ত কদর্য ভাষায়  আক্রমণ করে লেখালেখি চালিয়ে আসছে। এই মামলাতে সর্বমোট ২৯ জন ব্যাক্তিকে আসামী করা হয় যারা হচ্ছেন  হলেন – ইসরাত রশিদ (সম্পাদক, দৈনিক নবযুগ), আলী আমিন (প্রকাশক, দৈনিক নবযুগ), জনি জোসেফ ডি কস্তা (সহ-সম্পাদক, দৈনিক নবযুগ), নুরুল হুদা (সিনিয়র সহ সম্পাদক, দৈনিক নবযুগ), নূর মোহাম্মদ (উপদেষ্টা), মোঃ শহীদুল ইসলাম, শিপলু কুমার বর্মণ, আবু বকর সিদ্দিকী, মুকিত চৌধুরী, মোঃ আব্দুল রাজ্জাক,  কাজী মোশাররফ হোসাইন, আহসানুল হুদা সরকার, এম ডি শাইম, মোঃ জাকির হোসাইন, মিজানুর রহমান, মুসা আহমেদ জায়গীরদার, আহসানুল কবির, নুরুল ফারুক শাকের, মোঃ রাজিম হোসাইন, আরিফুল হক আরিফ, রোমানা আক্তার রুমকি,  মোঃ মারাজ মিয়া, মোঃ আশিফ হোসাইন, সুবর্ণা রহমান, মোঃ মাসুম সাজ্জাদ, মুমিনুর রাজা চৌধুরী, মোঃ শহীদুল ইসলাম জায়গীরদার, আবু সাঈদ, মোঃ আল-আমিন কায়সার, এবং আব্দুল ওয়াহিদ চৌধুরী । 

এই ব্যাপারে বাদী রাসেল সরকারের সাথে কথা যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, “এই দৈনিক নবযুগ হলো বাংলাদেশ শত্রু। এই পত্রিকার লেখকেরা প্রায়শঃ জাতির জনক, শেখ পরিবার এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নানাভাবে অপমান ও অপদস্ত করে যায় তাই আমি তাদের বিরুদ্ধে মামলা করতে বাধ্য হয়েছি। প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার হুমকি কিভাবে তারা দেন? ১৯৭৫ এর জাতির জনকের পরিবারের নারকীয় হত্যাযজ্ঞকে কিভাবে তারা সঠিক বলেন?”

এই ব্যাপারে মূল আসামীদের কারো সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়ে উঠেনি। এদিকে এই ঘটনার রেশ ধরে গতকাল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো ছিলো অত্যন্ত সরব। সেখানে নানাবিধ মিসগ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে।

এই ব্যাপারে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রনালয়ের সাথে যোগাযোগ করা হলে তাঁরা এই ব্যাপারে কোনো রকমের মন্তব্য করা হবে না বলে আমাদের প্রতিবেদককে জানান।